কান পরিষ্কারের যেসব ভুলে হতে পারে বিপদ

লাইফস্টাইল ডেস্ক :
কান শরীরের গুরুত্বপূর্ণ এক অঙ্গ। তবুও বেশিরভাগ মানুষের মধ্যেই অঙ্গটি নিয়ে উদাসীনতা দেখা যায়। গোসল করতে গিয়ে কানে পানি ঢুকে যাওয়া, এটা সেটা দিয়ে কান খোঁচানোসহ নানাভাবে কানে সংক্রমণ ঘটতে পারে। আর কানের বিভিন্ন সমস্যা খুবই যন্ত্রণাদায়ক।

বেশিরভাগ মানুষই জেনে বা না জেনে নিজে নিজেই কান পরিষ্কার করেন। তাও আবার ভুল উপায়ে। এর ফলে একাধিক কানের সমস্যায় ভুগতে হতে পারে। আসলে কান পরিষ্কার করা কতটা জরুরি, তা আগে জেনে নেওয়া উচিত।

এ প্রসঙ্গে কালকাতার কেপিসি মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের ইএনটি বিভাগের প্রধান প্রফেসর দ্বৈপায়ন মুখোপাধ্যায়ের মতে, শুনতে অবাক লাগলেও বাস্তব হলো কান পরিষ্কারের কোনো প্রয়োজনই নেই।

কারণ প্রাকৃতিক উপায়েই কান পরিষ্কারের নিজস্ব প্রক্রিয়া আছে। আর এই প্রক্রিয়া চলে ২৪ ঘণ্টা। কানে যে ওয়াক্স জমে তা একসময় আপনাআপনিই বাইরে বেরিয়ে আসে। তাই সেটা পরিষ্কারের জন্য এটা সেটা কানে ঢুকানো উচিত নয়।

অনেকেই কান পরিষ্কারের জন্য এয়ার বাডস ও দিয়াশেলাইয়ের কাঠি ব্যবহার করেন। যা কান পরিষ্কারের একেবারেই ভুল পদ্ধতি। এসব ব্যবহারের কারণে কান ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।

এর ফলে কানে সংক্রমণ বাড়তে পারে। এমনকি কখনো কখনো কানের পর্দা পর্যন্তও পৌঁছে যেতে পারে এই বাডস। তখন পর্দা ফুটো হয়ে যেতে পারে। তাই কান পরিষ্কার করার কোনো প্রয়োজনই নেই।

আবার অনেকেই অপেশাদারী মানুষের কাছে গিয়ে কান পরিষ্কার করান। এটিও খুবই ঝুঁকিপূর্ণ কাজ। এক্ষেত্রেও কানের পর্দায় আঘাত লাগতে পারে।

বিশেষজ্ঞের মতে, প্রতিটি মানুষকেই চোখের মতো কানের পরীক্ষা করাতে হবে নিয়মিত। কানের ভেতরের বিভিন্ন সমস্যা চেকআপের মাধ্যমে সহজেই ধরা পড়ে।

সূত্র : জাগোনিউজ