করোনাভাইরাসের ভারতীয় ধরন আজ বিশ্বের উদ্বেগ: ডব্লিউএইচও

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ
নতুন করোনাভাইরাসের দ্রুত ছড়িয়ে পড়া ভারতীয় ধরনটিকে ‘বিশ্বের উদ্বেগ’ হিসেবে চিহ্নিত করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

সোমবার সংস্থার এক সংবাদ সম্মেলনে ভারতীয় ধরনটির বিষয়ে ডব্লিউএইচওর সতর্কতা আসে বলে রয়টার্স জানিয়েছে।

প্রায় দেড় বছর আগে মানুষে সংক্রমিত হওয়া নতুন করোনাভাইরাস রূপ বদল করে চলছে।

এর মধ্যে গত বছর ভারতে এর যে পরিবর্তিত রূপ শনাক্ত হয়েছে, তার আনুষ্ঠানিক নাম বি.১.৬১৭ হলেও এটি ‘ইন্ডিয়া ভ্যারিয়েন্ট’ নামেই পরিচিতি পেয়েছে।

প্রায় দুই ডজন দেশে পৌঁছেছে এই ধরনটি; এটার তিনটি ‘সাব টাইপ’র মধ্যে একটি বাংলাদেশেও শনাক্ত হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে ডব্লিউএইচওর কারিগরি কমিটির প্রধান মারিয়া ফন কারখোভ বলেন, “আমরা বিশ্বজুড়ে একে ভ্যারিয়েন্ট অব কনসার্ন হিসেবে চিহ্নিত করেছি ।”

প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে করোনাভাইরাসের এই ধরনটির অতি সংক্রামক হওয়ার ইঙ্গিত মিলেছে বলে ডব্লিউএইচও জানিয়েছে।

করোনাভাইরাস মহামারীতে এখন বিপর্যস্ত ভারত। বিশ্বে দৈনিক আক্রান্ত ও মৃত্যুতে রেকর্ডের পর রেকর্ড হচ্ছে দেশটিতে। এজন্য বি.১.৬১৭ কেই দায়ী করা হচ্ছে।

ডব্লিউএইচও বলছে, বি.১.৬১৭ ভারতে প্রথম শনাক্ত হয়েছিল গত বছরের ডিসেম্বরে। তার আগে অক্টোবরে দেখা মিলেছিল তার আগের রূপটি।

কারখোভ জানান, ভারত ভ্যারিয়েন্ট এবং এর তিনটি সাব টাইপের বিষয়ে আরও তথ্য মঙ্গলবার পাওয়া যাবে।

সূত্রঃ বিডিনিউজ