অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান কাদেরের

অনলাইন ডেস্কঃ
করোনাভাইরাস মহামারীতে বেকার হয়ে পড়া অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে সবার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

রোববার সকালে নিজের সরকারি বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, “বৈশ্বিক সংকটে সরকারের পাশাপাশি অসহায় ও কর্মহীন মানুষের পাশে দলমত নির্বিশেষে দাঁড়ান। রমজানের এ ত্যাগ ও সংযমের মাসে অসহায় দরিদ্রদের প্রতি মানবিক সহায়তায় এগিয়ে আসুন।”

লকডাউনে ক্ষতিগ্রস্ত এক কোটি ২৫ লাখ পরিবারকে খাদ্য সহায়তা দেওয়া হবে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, “আসছে ঈদে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে ৩৬ লাখ ২৫ হাজার দরিদ্র পরিবারকে আর্থিক সহায়তা দেওয়া হবে।”

মৃত্যুর মিছিলে মূল্যবান প্রাণ হারাচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, “দোষারোপের রাজনীতি নয়, নয় অন্ধ সমালোচনার তীর ছোড়া, সবাইকে সংক্রমণ রোধে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।”

এর আগে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সেতু বিভাগের বিভিন্ন উন্নয়ন কার্যক্রমের পর্যালোচনা সভায় ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হন।

সভায় সেতুমন্ত্রী পদ্মাসেতুর নির্মাণ কাজ নিয়ে জানান, ইতোমধ্যে ৪১টি স্প্যান বসানো হয়েছে, এখন রেলওয়ে ও সড়ক পথের স্ল্যাব বসানোর কাজ চলছে। শনিবার পর্যন্ত পদ্মাসেতুর নির্মাণ কাজের অগ্রগতি ৮৫ শতাংশ।

২০২২ সালের জুন মাসে সেতুর নির্মাণ কাজ শেষ হলে যান চলাচলের জন্য খুলে দেওয়া যাবে বলেও আশা করেন তিনি।

চট্টগ্রামে কর্ণফুলী নদীর তলদেশে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান টানেলের কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে যাচ্ছে বলেও জানিয়েছন ওবায়দুল কাদের।

“প্রায় আড়াই কিলোমিটার দীর্ঘ একটি টিউবের রিং প্রতিস্থাপনসহ বোরিংয়ের কাজ শেষ হয়েছে, এর মধ্যে টিউবটির ৪০০ মিটার রোড স্ল্যাব নির্মাণ কাজ শেষ হয়েছে। এ পর্যন্ত টানেল নির্মাণ কাজের অগ্রগতি ৬৬ দশমিক ৫০ শতাংশ।”

এলিভেটেড এক্সপ্রেসওয়ে এবং এয়ারপোর্ট রোড থেকে আশুলিয়া বাইপাইল হয়ে ঢাকা ইপিজেড পর্যন্ত চার লেনের সড়ক ও উড়ালপথ নির্মাণ প্রকল্প কিছুটা গতি পেলেও আশানুরূপ নয় বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহনমন্ত্রী।

সূত্রঃ বিডিনিউজ