পেকুয়ায় রাজাখালী উন্মুক্ত পাঠাগারের উদ্বোধনঃ বই মানুষ ও সমাজকে আলোকিত করে

প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ
পেকুয়া উপজেলার রাজাখালী ইউনিয়নের আমিলাপাড়া এলাকার কৃষ্ণচূড়া মোড়ে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সামাজিক বিপ্লবের উদ্যোগে রাজাখালী উন্মুক্ত পাঠাগারের যাত্রা শুরু হয়েছে। শুক্রবার বিকেল চারটায় পাঠাগারটি উদ্বোধন করেন রাজাখালী ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সাবেক চেয়ারম্যান, এয়ার আলী খান উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রাক্তন প্রধান শিক্ষক ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি নুরুল ইসলাম বিএসসি।

টেকনাফের উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা ও পাঠাগারের উপদেষ্টা সরওয়ার কাদেরের সভাপতিত্বে এবং শিক্ষক রাকিব আল হাসান ও মো. রহিম উদ্দিনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন পেকুয়া উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান উম্মে কুলসুম মিনু। বিশেষ অতিথি ছিলেন প্রথম আলোর চকরিয়া-পেকুয়া প্রতিনিধি এস এম হানিফ, জয়বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড প্রাপ্ত পহরচাঁদা আদর্শ পাঠাগারের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রথম আলো বন্ধুসভা চকরিয়ার সভাপতি শোয়াইবুল ইসলাম, পেকুয়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আসহাব উদ্দিন হৃদয়, সমাজসেবক তৌহিদুল ইসলাম চৌধুরী সুজন, অ্যাডভোকেট হুমায়ুন কবির, জিয়াউল হক জিয়া, হাজী মোহাম্মদ আবু তাহের, নুর আয়েশা খান ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ইসমাইল খান, রাজাখালী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান হাসান ইমরু, শিক্ষানবীশ আইনজীবী মোহাম্মদ আসাদ উল্লাহ, কবি ও প্রাবন্ধিক রিয়াজ মোর্শেদ সায়েম, ক্রীড়া সংগঠক ইমরান চৌধুরী, মো. নুরুল ইসলাম প্রমুখ।

 

শিক্ষাবিদ নুরুল ইসলাম বিএসসি বলেন, বই মানুষ ও সমাজকে আলোকিত করে। উন্মুক্ত পাঠাগার কোনো গোষ্টী বা দলের জন্য নয়, সব শ্রেণি-পেশার মানুষ এই পাঠাগারে আসবে। জ্ঞান আহরণ করবে। তিনি আমিলা পাড়ার মতো একটি পিছিয়ে পড়া গ্রামে পাঠাগার প্রতিষ্ঠা করায় ‘সামাজিক বিপ্লব’কে অভিনন্দন জানান।

অনুষ্ঠান শেষে পাঁচটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনকে সামাজিক বিপ্লবের পক্ষ থেকে সেরা সংগঠনের অ্যাওয়ার্ড দেয়া হয়।