শপিং করতে গিয়ে করোনা আক্রান্ত ইংলিশ গোলরক্ষক

ক্রীড়া ডেস্কঃ
গত ১৮ মে একবার করোনা পরীক্ষা করিয়েছিলেন ইংলিশ গোলরক্ষক এরন রামসডেলে। পরীক্ষায় খারাপ কিছু আসেনি। তাই নিশ্চিন্তই ছিলেন। গিয়েছিলেন একটু শপিং (কেনাকাটা) করতে। গত শুক্রবার ফের করোনা পরীক্ষা করালেন, এবার আসলো পজিটিভ।

‘সানস্পোর্টে’র সঙ্গে আলাপে রামসডেলে বলেন, ‘এটা আসলেই স্তম্ভিত হওয়ার মতো ব্যাপার। আমি কারও সংস্পর্শে যাইনি, অথচ আক্রান্ত হয়ে গেলাম। আমার মধ্যে কোনো লক্ষণ ছিল না। তাই একজন তরুণ স্বাস্থ্যবান মানুষ হিসেবে ব্যাপারটা খুবই ভয়ংকর এবং দুশ্চিন্তার।’

ইংলিশ ক্লাব বোর্নমাউথের এক নম্বর গোলরক্ষক রামসডেলে ধারণা করছেন, সুপারমার্কেটে যাওয়াই কাল হয়েছে তার জন্য। এভাবে ভাইরাসের কবলে পড়বেন ভাবতে পারেননি ২২ বছর বয়সী এই ফুটবলার।

তিনি বলেন, ‘জানতাম আমাকে ভাইরাস আক্রান্ত করেনি। এই অবস্থায় তো শুধু স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাই যথেষ্ট ছিল। আমি কেবল শপিংমলে গিয়েছিলাম। প্রথমবার এই খবর শুনে আমি ভীষণ ভয় পাই। এখন আমার মেনে নিতেই হবে, আমি করোনা আক্রান্ত।’

ইংল্যান্ডের হয়ে অনূর্ধ্ব-২১ দলে খেলা এই গোলরক্ষক বর্তমানে নিজ বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন। সাতদিন কোয়ারেন্টাইন পিরিয়ড শেষ হলে আবারও করোনা টেস্ট করানো হবে তার। সে টেস্টে ফল নেগেটিভ আসলে তবেই ট্রেনিংয়ে ফিরতে পারবেন।

রামসডেলের করোনাআক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়ার আগের দিনই বোর্নমাউথ জানিয়েছিল, তাদের একজন খেলোয়াড় পজিটিভ হিসেবে ধরা পড়েছেন। যদিও তার নাম জানানো হয়নি।

শনিবার বোর্নমাউথ এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘প্রিমিয়ার লিগ মাঠে ফেরার পর শক্তভাবে নিয়ম মানা হচ্ছে। খেলোয়াড় এবং স্টাফদের জন্য যাতে নিরাপদ কাজের পরিবেশ রাখা যায়, সেজন্য আমরা প্রতি সপ্তাহে দুইবার কোভিড-১৯ টেস্ট করাব।’

সূত্রঃ জাগোনিউজ