সংঘনায়ক শুদ্ধানন্দ মহাথের আর নেই

প্রজ্ঞানন্দ ভিক্ষুঃ
একুশে পদকে ভূষিত, ঢাকা কমলাপুর ধর্মরাজিক বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ, আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন সাংঘিক ব্যক্তিত্ব, মহামান্য ২৮তম সংঘনায়ক ভদন্ত শুদ্ধানন্দ মহাথের মহোদয় শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেছেন।

৩ মার্চ, মঙ্গলবার সকাল ৮টার দিকে তিনি ঢাকা ল্যাব এইড হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

সংঘনায়ক শুদ্ধানন্দ মহাথের তৎকালীন ব্রিটিশ ভারতের বেঙ্গল প্রেসিডেন্সির (বর্তমান বাংলাদেশ) চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া উপজেলার উত্তর পাদুয়ায় এক সম্ভ্রান্ত বৌদ্ধ পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর পিতার নাম বংঘ চন্দ্র বড়ুয়া এবং মাতার নাম রেবতী বালা বড়ুয়া।

ভদন্ত শুদ্ধানন্দ মহাথের প্রয়াত বিশুদ্ধানন্দ মহাথের’র একজন স্বনামধন্য শিষ্য।

তিনি বাংলাদেশ বৌদ্ধ কৃষ্টি প্রচার সংঘের সভাপতি এবং বিশ্ব বৌদ্ধ ভ্রাতৃত্ব সংঘের সহ-সভাপতি।

সমাজসেবায় অবদানের জন্য বাংলাদেশ সরকার তাঁকে ২০১২ সালে একুশে পদকে ভূষিত করে।

সংঘনায়ক শুদ্ধানন্দ মহাথের জীবদ্দশায় অতীশ দীপঙ্কর স্বর্ণ পদক (১৯৯৭), বাংলা একাডেমির ফেলো (২০০৫), মহত্মা গান্ধী শান্তি পদক (২০০৭), সমাজসেবায় একুশে পদক (২০১২) এবং শান্তি স্বর্ণ পদক, ভারত সহ দেশ-বিদেশে অনেক সম্মাননা লাভ করেন।

এদিকে সংঘনায়ক শুদ্ধানন্দ মহাথের’র প্রয়াণে তাঁর পারলৌকিক সদগতি কামনা করে বিবৃতি দিয়েছেন কক্সবাজার জেলা বৌদ্ধ সুরক্ষা পরিষদ। কক্সবাজার জেলা বৌদ্ধ সুরক্ষা পরিষদ মনে করে, সংঘনায়ক শুদ্ধানন্দ মহাথের’র প্রয়াণে বাংলাদেশী বৌদ্ধ সমাজের অফুরান ক্ষতি সাধন হয়েছে। এ ক্ষতি পূরণ হওয়ার নয়। তিনি অসাম্প্রদায়িক চেতনার একজন সম্প্রীতির মানুষ ছিলেন।