সংসদে সংরক্ষিত আসন চান হিন্দু নেতারা

অনলাইন ডেস্কঃ
হিন্দু সম্প্রদায়ের অস্তিত্ব রক্ষা ও গণতন্ত্রের স্বার্থে জাতীয় সংসদে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিত্ব নিশ্চিতে সংরক্ষিত আসনের দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোট নামক একটি সংগঠন।

শুক্রবার (১৫ মার্চ) জাতীয় প্রেস ক্লাবের মাওলানা আকরাম খাঁ হলে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের নেতারা এ দাবি জানান।

তারা বলেন, সারাদেশে ব্যাপকভাবে হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর আক্রমণ, লুণ্ঠন, বসত বাড়ি ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানে অগ্নিসংযোগ, চাঁদা দাবি এবং দেশত্যাগের হুমকির মতো ঘটনা ঘটছে। কয়েকদিন আগেই মানবাধিকার কর্মী প্রিয়বালা বিশ্বাস ও প্রীতিলতা বিশ্বাসের বসতবাড়ি আগুনে পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। সিলেটের যুগল টিলা মন্দির এবং পাবনায় স্বপন বাসকের জমি দখলের অপচেষ্টা করা হয়েছে।

এ সময় আয়োজক সংগঠনের পক্ষ থেকে জাতীয় সংসদে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের জন্য সংরক্ষিত আসনসহ বেশ কিছু দাবি জানানো হয়। দাবিগুলোর মধ্যে রয়েছে- সব পাঠ্যপুস্তক ধর্মনিরপেক্ষ করতে হবে, দুর্গাপূজায় তিন দিন, রথযাত্রায় একদিন ও শ্রী শ্রী হরি ঠাকুরের জন্মদিন মহাবারুণীতে একদিন সরকারি ছুটি ঘোষণা করে সংবিধানে বর্ণিত সমঅধিকার ও সমমর্যাদা নিশ্চিত করতে হবে। সেই সঙ্গে সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রণালয় প্রতিষ্ঠা এবং সংখ্যালঘু সম্প্রদায় থেকে একজনকে পূর্ণ মন্ত্রী নিয়োগ দিতে হবে।

সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট দীনবন্ধু রায়, মহাসচিব গোবিন্দ চন্দ্র প্রামাণিক, সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব উত্তম দাস প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।