রামু বাঁকখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রশংসনীয় উদ্যোগ: ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা অভিযান

সোয়েব সাঈদ:
সড়কের পাশ দিয়ে এগিয়ে চলছে দুই শতাধিক শিক্ষার্থীদের র‌্যালী। র‌্যালীতে অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের কারো হাতে ময়লার ঝুড়ি, কারো হাতে গ্লাভস। হাতে গ্লাভস পরা শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা সড়কের দুপাশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা ময়লা কুড়িয়ে রাখছিলেন ঝুড়িতে। র‌্যালীর অগ্রভাগে রিক্সায় মাইকে প্রচার হচ্ছে পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা বিষয়ক সচেতনতামূলক প্রচারনা।

পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম চলাকালে এক পশলা বৃষ্টি শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের ভিজিয়ে দিলেও নিজেদের কাজে দমেনি কেউ। পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম চলাকালে শিক্ষার্থীরা ব্যবসায়ি, পথচারি ও পরিবহন চালক-শ্রমিকদের পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা বিষয়ক সচেতনতামূলক প্রচারপত্রও (লিফলেট) বিতরণ করেন। বিদ্যালয়ের ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের এমন অভিনব ও প্রশংসনীয় উদ্যোগ পথচারি, ব্যবসায়ি মহলসহ সর্বস্তুরের মানুষের মাঝে ব্যাপক সাড়া জাগিয়েছে ।

ব্যতিক্রমী এ পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা অভিযান ও সচেতনতামূলক র‌্যালীর আয়োজন করে রামুর অনন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বাঁকখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। ‘পরিচ্ছন্ন আপনি, পরিচ্ছন্ন আমি, পরিচ্ছন্ন রামু, পরিচ্ছন্ন বাংলাদেশ’ এ শ্লোগানকে সামনে রেখে আয়োজিত পরিচ্ছন্নতা অভিযান ও র‌্যালীতে অংশ নিয়েছেন বিদ্যালয়টির দুই শতাধিক শিক্ষার্থী এবং শিক্ষকবৃন্দ।

cleaning-2-copyবাঁকখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সৈয়দ নজরুল ইসলাম জানিয়েছেন, গত শনিবার (৮ অক্টোবর) বেলা ১২ টা থেকে দুপুর ২ টা পর্যন্ত বাঁকখালী উচ্চ বিদ্যালয় হতে বাইপাস, বাইপাস হতে চৌমুহনী স্টেশন, চৌমুহনী হতে রামু এভারেস্ট টিচিং ইন্সটিটিউট (কেজি স্কুল) পর্যন্ত প্রায় এক কিলোমিটার সড়কে চলে এ পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম।

বাঁকখালী উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ইজত উল্লাহ আমাদের রামু কে জানিয়েছেন, বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী এবং জনসাধারণনকে পরিস্কার-পরিচ্ছনতায় সচেতন করার লক্ষ্যে এ কর্মসূচি পালন করা হয়েছে। ভবিষ্যতে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের উদ্যোগে রামুর জনগুরুত্বপূর্ণ সড়কের পাশে পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন করার লক্ষ্যে আরো কার্যকর কর্মকান্ডের উদ্যোগ নেয়া হবে।

রামু পরিবেশ সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি খালেদ শহীদ আমাদের রামু কে জানিয়েছেন, রোগ-ব্যাধি থেকে মুক্ত থাকা ও পরিপূর্ণ সুস্থ দেহের জন্য পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন থাকা সবচেয়ে জরুরী। এমন জনহিতকর বিষয়ে বাঁকখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের উদ্যোগ প্রশংসার দাবি রাখে। দেশের সকল শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা এ ধরনে কার্যক্রম চালালে জনসচেতনতা বাড়বে। এতে পুরো দেশই পরিচ্ছন্ন হবে।

পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা অভিযান ও সচেতনতামূলক র‌্যালীতে বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সাধারণ সম্পাদক ও রামু কলেজের সহকারী অধ্যাপক ইজত উল্লাহ, বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদ সদস্য সুনীল কুমার শর্মা, বিশিষ্ট সংগীত শিল্পী মানসী বড়ুয়া ও নুরুল আমিন, বাঁকখালী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সৈয়দ নজরুল ইসলাম, সহকারী শিক্ষক শাখাওয়াত সুলতান, জেসমিন আকতার, আসমা তুল এলা, সুরজিত পাল, বাপ্পা বড়ুয়া, ফাহমিদা আলম, রেফাইতুল মান্নান, সাঈদা আক্তার ও দীপন বড়ুয়া অংশ নেন।
বিদ্যালয় সম্মুখের সড়ক ও ক্যাম্পাস পরিস্কার-পরিচ্ছন্ন করার মাধ্যমে পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রমের সমাপ্তি ঘটে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here