দুবাইয়ে ৬৮৯৫ অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসী আটক

সংযুক্ত আরব আমিরাতের বাণিজ্যিক রাজধানী দুবাইয়ে চলতি বছরের প্রথমার্ধে ৬ হাজার ৮শ ৯৫ বাংলাদেশিসহ ৩৫ হাজার অবৈধ অভিবাসীকে আটক করেছে স্থানীয় আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী।

কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে সম্প্রতি আমিরাতের সংবাদমাধ্যমে এ খবর দেওয়া হয়। আর সংবাদমাধ্যমকে এ তথ্য দেন দুবাই পুলিশের সহকারী কমান্ডার-ইন-চিফ (ক্রিমিনাল ইনভেস্টিগেশন) মেজর জেনারেল খলিল ইব্রাহিম আল মানসৌরি ও অবৈধ অনুপ্রবেশ রোধ দফতরের পরিচালক মেজর আলী সালেম। খবর বাংলানিউজের।

সংবাদমাধ্যমে বলা হয়, দুবাইয়ে এ বছরের প্রথমার্ধে ৩৫ হাজার অবৈধ অভিবাসী আটক হয়েছেন। এদের মধ্যে ২ হাজার ৫২০ নারী এবং ১ হাজার ৭৮০ ভিক্ষুক রয়েছেন। তবে, আটককৃতদের মধ্যে বাংলাদেশিদের সংখ্যাই সবচেয়ে বেশি।

প্রতিবেদন মতে, আটককৃতদের মধ্যে বাংলাদেশির সংখ্যা ৬ হাজার ৮৯৫ জন, যাদের মধ্যে ৬ হাজার ৫১৪ জন পুরুষ এবং ৩৮১ জন নারী। আর পাকিস্তানির সংখ্যা ৪ হাজার ২৩২ জন, ভারতীয় সংখ্যা ১ হাজার ১৬৪ জন। বাকি অভিবাসীরা এশিয়া ও আফ্রিকার বিভিন্ন দেশের নাগরিক।

বাংলাদেশি অবৈধ অভিবাসী আটকের বিষয়ে জানতে চাইলে দুবাই ও উত্তর আমিরাত কনস্যুলেটের প্রথম সচিব (শ্রম) একেএম মিজানুর রহমান বাংলানিউজকে বলেন, আমরা অফিসিয়ালি এ বিষয়ে কিছু জানি না। তবে এখানে অবৈধ যারা আটক হয়, প্রথমে তাদের কোর্টে পাঠানো হয়। এরপর তাদের বিভিন্ন সাজা দেওয়া হয়। কাউকে একমাস, কাউকে দুই মাস, কাউকে তিনমাস পর্যন্ত সাজা দেওয়া হয়।

তিনি আরও বলেন, আটক অভিবাসীদের মধ্যে যাদের কাছে পাসপোর্ট রয়েছে তাদের দেশে পাঠিয়ে দেওয়া হয়। যাদের পাসপোর্টের মেয়াদোত্তীর্ণ হয়ে গেছে, তাদের কনস্যুলেট থেকে তিন মাসের মেয়াদ বাড়িয়ে দেওয়া হয়ে থাকে। আর যাদের পাসপোর্ট নেই, তাদের আমাদের কনস্যুলেট থেকে আউট পাস দিয়ে দেশে পাঠানো হয়।