এমপি কমলের কৃতজ্ঞতা ও সহযোগিতা কামনাঃ কক্সবাজার সদর হাসপাতাল সারা দেশের মডেল

প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ
কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল সারা দেশের মডেল হাসপাতালের স্বীকৃতি পেয়েছে। সম্প্রতি স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য বিভাগ এক পরিপত্র জারি মাধ্যমে এই স্বীকৃতি প্রদান করেছে। এ আনন্দের খবরে হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি কমিটির সদস্যদের নিয়ে মঙ্গলবার (৮ ফেব্রুয়ারি) সকালে কক্সবাজার সদর হাসপাতাল পরিদর্শন করেন।

হাসপাতাল পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি বলেন, কক্সবাজার জেলাবাসীর জন্যে একটি আনন্দের ও গর্বের সংবাদ। বাংলাদেশ সরকারের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এক প্রজ্ঞাপনে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালকে দেশের জেলা পর্যায়ের মধ্যে মডেল হাসপাতাল হিসেবে ঘোষনা করেছে।

কেন কক্সবাজার জেলা সদর হাসপতাল দেশের সেরা মডেল হাসপাতাল হলো, এ প্রশ্নের জবাবে হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি জানান, প্রথমতঃ এ হাসপাতালের সেবার গুণতগ মান অত্যন্ত উন্নত। এ হাসপাতালের চিকিৎসক, নার্স সহ সংশ্লিষ্ট সকলেই দেশের অন্যান্য জেলা হাসপাতালের চেয়ে বেশি সেবা দিয়ে থাকেন। দ্বিতীয়ত, কক্সবাজারের হাসপাতালে যত রোগী থাকে, বাংলাদেশের অন্যান্য জেলা পর্যায়ের হাসাপতালে তত রোগী থাকে না। তৃতীয়ত, কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালের বর্হিঃবিভাগে প্রতিদিন যত রোগীর চিকিৎসা সেবা দেয়া হয়, তত রোগী দেশের অন্য কোন জেলা পর্যায়ের হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা দেয়া হয়না। চর্তুথত, এ হাসপাতালের পরিস্কার পরিচ্ছন্নতায় ক্লিনার, স্টাফরা দায়িত্ব নিয়ে রক্ষা করে। এ রকম পরিস্কার পরিচ্ছন্নতা বাংলাদেশের বেশির ভাগ হাসপাতালে অপেক্ষাকৃত ভাবে কম থাকে। পঞ্চমত, কোভিড-১৯ চিকিৎসায় কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল সুচকের মধ্যে বাংলাদেশের জেলা পর্যায়ের অন্যান্য হাসপাতালের চেয়ে অধিক পয়েন্ট পেয়েছে। ষষ্ঠত, এ হাসপাতালের বর্জ্য ব্যবস্থাপনা রয়েছে তা বিজ্ঞান সম্মত। বাংলাদেশের জেলা পর্যায়ে আর কোন হাসপাতালে এ ব্যবস্থাপনা নেই। সপ্তমত, এই হাসপাতালে রয়েছে আন্তর্জাতিক মানের জরুরী বিভাগ। এই জরুরী বিভাগে সমস্ত ধরণের চিকিৎসা সেবা দেয়ার সুবিধা রয়েছে। কোন রোগীকে জরুরী বিভাগের বাহির থেকে কোন ঔষধ-পথ্য কিনতে হয়না। অষ্টমত, এই হাসাপতালের রয়েছে প্রত্যেক রোগীর জন্য পরীক্ষা-নিরিক্ষাসহ আন্তর্জাতিক মানের চিকিৎসা সেবার ব্যবস্থা। রয়েছে আন্তর্জাতিক মানের নিবিড় শিশুস্বাস্থ্য পরিচর্যা কেন্দ্র, আইসিইউ ও ২৪ ঘন্টা প্যাথোলজি ব্যবস্থা।

এমপি কমল আরও বলেন, অনেক সমস্যার মাঝেও কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল বাংলাদেশের সমস্ত জেলা গুলোর মধ্যে সেরা মডেল নির্বাচিত হয়েছে, শুনে আমরা অত্যন্ত আনন্দিত। এই কক্সবাজার হাসপাতালকে অনুসরন করার জন্য বাংলাদেশের সমস্ত জেলা ও উপজেলার হাসপাতাল গুলোকে নির্দেশনা জারি করেছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। আমাদের চেষ্টা থাকবে এই স্বীকৃতির ধরে রাখা। তিনি ব্যবস্থাপনা কমিটির সকল সদস্য, সুপার, চিকিৎসক, নার্স, ওয়ার্ডবয়, ক্লিনারসহ সকলকে ব্যক্তিগত পক্ষ থেকে ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে ধন্যবাদ জানান। তাদের অশেষ প্রচেষ্টার ফলে আজকে কক্সবাজার বাংলাদেশের সেরা মডেল হাসপাতাল হিসেবে নির্বাচিত হয়েছে।

এমপি কমল কক্সবাজার বাসির সহযোগিতা কামনা করে বলেন, হাসপাতালের আউটডোরের অনেক সমস্যার মাঝেও চারশত জনের স্থলে অনেক সময় দুই হাজার রোগীকে সেবা দিতে হয়। স্থান সংকুলান থাকা সত্তে¡ও আমরা সকলকে সমান চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাবো। পরিদর্শনকালে হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্যদের মধ্যে সুপার ডা. মুমিনুর রহমান, আরএমও ডা. শাহীন আবদুর রহমান চৌধুরী, ইএমও আশিকুর রহমান, সদস্য রুস্তম আলী চৌধুরী প্রমুখ।