আফগানিস্তানে গৃহযুদ্ধের আশঙ্কা আছে: মার্কিন সামরিক কর্মকর্তা

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ
যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর জয়েন্ট চিফস অব স্টাফ চেয়ারম্যান জেনারেল মার্ক মিলি বলেছেন, আফগানিস্তানে ভবিষ্যতে গৃহযুদ্ধ পরিস্থিতি সৃষ্টি হতে পারে বলেই তিনি মনে করেন।

আর গৃহযুদ্ধ শুরু হলে সেখানে আবার আল কায়েদা এবং আইএস এর মতো জঙ্গি গোষ্ঠীগুলো মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে পারে, বলেছেন মিলি।

যুক্তরাষ্ট্রের ‘দ্য হিল’ পত্রিকা জানায়, শনিবার প্রচারিত ফক্স নিউজের এক সাক্ষাৎকারে সাংবাদিকের এক প্রশ্নের জবাবে মিলি এই সতর্কবার্তা দেন।

আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার পরবর্তী এই সময়ে যুক্তরাষ্ট্র আজ আরও খানিকটা নিরাপদ কিনা- এমন প্রশ্নের জবাবে মিলি বলেন, “এ বিষয়টি নিয়ে আমি অনেক ভেবেছি।”

“আমি ব্যক্তিগতভাবে মনে করি, আমার সামরিক হিসাব-নিকাশ বলছে, গৃহযুদ্ধ পরিস্থিতি তৈরি হওয়ার আশঙ্কা আছে। আমি জানি না তালেবান ক্ষমতা সংহত করে শাসন প্রতিষ্ঠা করতে পারবে কি না। তারা এটা পারতেও পারে, নাও পারতে পারে।”

জার্মানির রামস্টেইনে ফক্স নিউজের সংবাদদাতার সঙ্গে সাক্ষাৎকারে মার্ক মিলি আরও বলেন, ব্যাপক মাত্রায় গৃহযুদ্ধ বেধে যাওয়ার আশঙ্কা প্রবল বলেই তিনি মনে করেন। আর তা হলে আল কায়েদা ও আইএস এর পুনরুত্থানসহ অন্যান্য আরও সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর জন্ম ও বিস্তার ঘটতে পারে ওই অঞ্চলে।

আফগানিস্তানে দীর্ঘ ২০ বছরের যুদ্ধের অবসান ঘটিয়ে যুক্তরাষ্ট্র গত ৩১ অগাস্ট সব সেনা প্রত্যাহার করে নিয়েছে। আমেরিকার মাটিতে ২০০১ সালের ১১ সেপ্টেম্বরে সন্ত্রাসী হামলার প্রেক্ষাপটেই তালেবানের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবাদে মদদের অভিযোগ এনে আফগানিস্তানে সন্ত্রাস-বিরোধী যুদ্ধে নেমেছিল যুক্তরাষ্ট্র ও মিত্রদেশগুলো।

সেই যুদ্ধের ইতি টেনে মার্কিন সেনাসহ সব বিদেশি সেনা আফগানিস্তান ছাড়তে শুরু করার সময় থেকেই সেখানে রাতারাতি দৃশ্যপট পাল্টে যেতে শুরু করে। চূড়ান্ত পর্যায়ে সেনা প্রত্যাহারের আগেই ১৫ অগাস্ট কাবুলের পতনের মধ্য দিয়ে ক্ষমতা আবার চলে যায় তালেবানের হাতে।

কিন্তু কাবুল তালেবানের হাতে চলে গেলেও আফগানিস্তানে সংঘাত এখনও চলছে। দেশটির পানশির প্রদেশে বিরোধীদের সঙ্গে তালেবানের তুমুল লড়াই হচ্ছে। সেখানে একে অপরের পক্ষে বহুজনকে হতাহতের দাবি করেছে তালেবান ও বিরোধীরা।

রাজধানী কাবুলের উত্তরে অবস্থিত একমাত্র এই প্রদেশই এখনও তালেবান নিয়ন্ত্রণের বাইরে রয়েছে। সেখানে দু’পক্ষের তীব্র লড়াইয়ের প্রেক্ষাপট মূর্ত করে তুলছে গৃহযুদ্ধের শঙ্কা। তালেবান দ্রুতই প্রদেশটির দখল নিতে না পারলে গৃহযুদ্ধের আশঙ্কা প্রবল।

অগাস্ট মাস থেকে আফগানিস্তানে দ্রুত অবনতিশীল এই পরিস্থিতির পরিপ্রেক্ষিতেই মার্কিন জেনারেল মার্ক মিলি ফক্স নিউজের সাক্ষাৎকারে তার চিন্তা-ভাবনা এবং আশঙ্কার কথা তুলে ধরেছেন। মার্কিন সেনাদেরকে আবার আফগানিস্তান পরিস্থিতিতে হস্তক্ষেপ করতে হতে পারে কিনা –সাংবাদিকের এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, “সেটি আফগান নীতির ক্ষেত্রে খুবই কঠিন এক সিদ্ধান্ত হবে।”

মিলি বলেন, “আসলে এ ব্যাপারে আমি হ্যাঁ বা না কোনওটিই বলব না। এ বিষয়ে সেরকম কিছু বলার সময় এখনও আসেনি বলেই আমি মনে করি।” এক্ষেত্রে গোয়েন্দা পরিস্থিতি নজরে রাখা দরকার বলে তিনি মন্তব্য করেন।

সূত্রঃ বিডিনিউজ