সাইনাস দূর করবেন যেভাবে

লাইফস্টাইল ডেস্কঃ
সারা বছর যেমন-তেমন, শীতের সময় এলেই সাইনাসের সমস্যা মাথাচাড়া দিয়ে ওঠে অনেকের। এটি মূলত নাকের এক ধরনের ইনফেকশন। এটি অ্যালার্জি বা অনেকসময় ব্যাকটেরিয়াল সংক্রমণ বা সর্দির কারণে হতে পারে। সাইনাসের কারণে শরীরে মিউকাস বৃদ্ধি পেতে থাকে। যার ফলে মাথাব্যথা হতে পারে এবং শ্বাস নিতেও অসুবিধা হয়। এই সময়ে সাইনাস থেকে দূরে থাকার কিছু উপায় চলুন জেনে নেয়া যাক-

সাইনাস থেকে দূরে থাকার জন্য বেশি করে পানি পান করুন। শরীরে পানির অভাবে সাইনাসের সমস্যা আরও বেড়ে যেতে পারে। আপনার সাইনাসের সমস্যা থাকলে সব সময় নিজেকে আর্দ্র রাখার চেষ্টা করুন। প্রচুর পানি পান করুন, চেষ্টা করুন চিনি ছাড়া চা পানের। এতে শরীরে জমে থাকা মিউকাস সহজেই বের হয়ে যাবে। এই সময় ভিটামিন এ জাতীয় খাবার খান। আইসক্রিম, পনির এবং দই জাতীয় জিনিস এড়িয়ে চলাই ভালো।

গোলমরিচ সাইনাস দূর করার ক্ষেত্রে কার্যকরী। এর অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি এবং অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্য রয়েছে যা সর্দি দূর করতে সহায়তা করে। আপেল সাইডার ভিনেগার এবং লেবুর রসও সাইনাস দূর করতে সমান উপকারী।

সাইনাস দূর করতেসাহায্য করে গরম ভাপ। একটি পাত্রে পানি নিয়ে তাতে ৩ ফোঁটা পিপারমিন্ট তেল, ৩ ফোঁটা রোজমেরি তেল, ২ ফোঁটা ইউক্যালিপটাস তেল দিয়ে হালকা তোয়ালে দিয়ে মুখ ঢেকে ভাপ নিন। এটি নাক খুলতে সাহায্য করে। অনেকটা আরাম পাবেন।

চা পছন্দ করলে হলুদ এবং আদা চা খেতে পারেন। হলুদে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি গুণ রয়েছে। হলুদ এবং আদা চা মিউকাস কমাতে সাহায্য করে।এছাড়াও এক চা চামচ মধুর সঙ্গে মেশানো আদার রস দিনে ২-৩ বার খাওয়া যেতে পারে।

আপেল সাইডার ভিনেগার সাইনাসে প্রাকৃতিক প্রতিকার হিসাবেও কাজ করে। এককাপ গরম পানিতে ৩ টেবিল চামচ আপেল ভিনেগার দিয়ে খেলে সাইনাসের চাপ কমে যায়। লেবু ও মধুও দিয়েও খাওয়া যেতে পারে। এই সময়ে গরম স্যুপ খেতে পারেন।

সূত্রঃ জাগোনিউজ