কক্সবাজারে হোটেল থেকে তুর্কি নাগরিকের মরদেহ উদ্ধার

অনলাইন ডেস্কঃ
কক্সবাজার শহরের কলাতলীর একটি আবাসিক হোটেলের কক্ষ থেকে এক তুর্কি নাগরিকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি বালুখালী রোহিঙ্গা ক্যাম্পে তুরস্কের ফিল্ড হসপিটালে আইটি কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

রোববার (০৩ মে) সন্ধ্যার পর তার মরদেহ উদ্ধার করা হয় বলে জানিয়েছেন কক্সবাজার সদর মডেল থানার ওসি (তদন্ত) মো. খায়রুজ্জামান।

ওই তুরস্কের নাগরিকের নাম মিসিউত ডুলান দে (৫০)। তার মরদেহ দক্ষিণ কলাতলীর ‌সুইট সাদাফ হোটেলের ৭০২ নম্বর কক্ষে পাওয়া যায়। ডুলান দের পাসপোর্ট নম্বর-এস-২০৭৪০৯০৯।

ওসি জানান, তাকে হোটেলের রুম থেকে বের হতে না দেখে থানায় ফোন করা হয়। পরে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে রাত ৮টার দিকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে আসে। সেখানে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। প্রাথমিকভাবে ব্রেন স্ট্রোকে তার মৃত্যু হয়েছে বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে। তার মরদেহ কক্সবাজার সদর হাসপাতালে রাখা হয়েছে। পরবর্তী ব্যবস্থা শেষে মরদেহ হস্তান্তর করা হবে।

এদিকে, মরদেহের করোনা পরীক্ষার নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে জানিয়ে কক্সবাজার সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) জানান, তাকে হাসপাতালে আনার আগেই তিনি মারা যান। কী কারণে তিনি মারা গেছেন তা এখনও নিশ্চিত নয়। ধারণা করা হচ্ছে, তার মৃত্যু স্ট্রোকে হতে পারে। পরীক্ষার পর সংশ্লিষ্টদের মরদেহটি হস্তান্তর করা হবে।

শরণার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার কার্যালয়ের অতিরিক্ত কমিশনার মোহাম্মদ শামসুদ্দোজা নয়ন বলেন, বিষয়টি আমরা জানতে পেরেছি। ওই বিদেশি ৯ নম্বর ক্যাম্পের তুরস্ক পরিচালিত ফিল্ড হসপিটালে কর্মরত ছিলেন।

সূত্রঃ জাগোনিউজ