এটা রাজনীতির সময় নয়: তথ্যমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্কঃ
আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, চলমান বৈশ্বিক দুর্যোগ করোনাভাইরাসের থাবা থেকে বাংলাদেশও মুক্ত নয়। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যেভাবে তা মোকাবিলা করছেন, আজ সমগ্র বিশ্ব তার প্রশংসা করছে। এটা রাজনীতির সময় নয়। সবাই মিলে জনগণের পাশে দাঁড়াবার সময়।

মঙ্গলবার রাজধানীর বনানী কবরস্থানে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মেঝ ছেলে শহীদ মুক্তিযোদ্ধা লেফটেন্যান্ট শেখ জামালের ৬৭তম জন্মদিন উপলক্ষে তার সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদনকালে তথ্যমন্ত্রী সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। বিএনপির সমসাময়িক ভূমিকার বিষয়ে সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, দলটি রাজনীতি মিথ্যার ওপর প্রতিষ্ঠিত। তারা জনগণের পাশে দাঁড়ায়নি। ঢাকা শহরে ত্রাণের নামে ফটোসেশন আর সরকারের বিরুদ্ধে মিথ্যাচার করাই তাদের কাজ। তাদের এ পথ পরিহার করে সারাদেশে তৃণমূল পর্যায় পর্যন্ত ত্রাণ বিতরণে নিয়োজিত আওয়ামী লীগের সঙ্গে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহবান জানাই।

শেখ জামালের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যাকারী খুনিচক্র রাজনৈতিক মদদে আজও সক্রিয়। শেখ জামালের জন্মদিনে সবার প্রত্যয় হবে খুন ও খুনের রাজনীতিকে বাংলাদেশ থেকে চিরতরে বিদায় দেওয়া। এজন্য সবাইকেই ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে।

তিনি বলেন, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। শেখ জামালকেও সেদিন হত্যা করা হয়। শেখ জামাল সেনাবাহিনীর একজন মেধাবী অফিসার, মুক্তিযোদ্ধা ও সংস্কৃতিমনা মানুষ ছিলেন। তিনি কোনো রাজনীতির সাথে যুক্ত ছিলেন না। তাকে কেনো হত্যা করা হলো? এই খুনের রাজনীতিকে চিরতরে বিদায় দিতে হবে।

মন্ত্রী এসময় শেখ জামালের কবরে ফুলেল শ্রদ্ধা জানান ও তার আত্মার শান্তি কামনা করে মোনাজাতে অংশ নেন। আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া ও উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খানসহ দলীয় নেতাকর্মীরা সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

সূত্রঃ সমকাল