শুধু টেস্টের জন্য বাংলাদেশকে চায় পাকিস্তান

ক্রীড়া ডেস্কঃ
পূর্ণ সিরিজের জন্য নয়, সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্য পাকিস্তান সফরে যেতে পারে বাংলাদেশ। এই ভাবনা জেনে আপাতত শুধু টেস্ট সিরিজ খেলতে যাওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড প্রধান নাজমুল হাসান জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার সফর নিয়ে সিদ্ধান্তের কথা জানাবেন তারা।

মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বুধবার ক্রিকেটারদের সঙ্গে আলোচনা শেষে পাকিস্তান সফর নিয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন নাজমুল হাসান। এ সময় জানান, টেস্ট সিরিজ নিয়ে পাকিস্তানের আগ্রহ বেশি।

“সবার সাথে বসে আপডেটগুলো দিচ্ছিলাম। আমরা পাকিস্তানকে যেটা জানিয়েছি, টি-টোয়েন্টি তিনটা খেলে আমরা চলে আসতে চাই। এসে পরে কোনো একটা সময়ে টেস্ট রিশিডিউল করা যায় কিনা, এটা নিয়ে আমরা আলাপ করছিলাম। যদিও ওদের নজর টেস্টে বেশি। ওরা আগ্রহী টেস্ট নিয়ে। যেহেতু এটা টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ, তাই তারা বলছে, ‘টেস্টটা গুরুত্বপূর্ণ। টেস্ট এখন খেলব। টি-টোয়েন্টি আমরা বিশ্বকাপের আগে খেলব।’ এই অবস্থায় আছি।”

“আমরা এজেন্সি থেকে যা যা রিপোর্ট পাওয়ার কথা ছিল ওটা পেয়েছি। তারপরও আরও আলাপের বাকি আছে। আমার ধারণা কালকের মধ্যে আমরা একটা সিদ্ধান্তে আসতে পারব।”

দলের সিনিয়র ক্রিকেটার মুশফিকুর রহিম জানিয়েছেন, পাকিস্তান সফরে যাবেন না তিনি। কোচিং স্টাফদের কয়েকজন না যাওয়ার কথা বলেছেন বলে নিশ্চিত করেছেন বিসিবি প্রধান।

“মুশফিক প্রথম থেকেই যাওয়ার ব্যাপারে আগ্রহী না। আর অন্য যাদের সাথে কথা হয়েছে, তারা বলেছে সংক্ষিপ্ত হলেই ভালো হয়। এটা আমরা বলেছিলাম। ওরা তখন আমাদের পাল্টা বলেছে, আমাদের প্রায় সব খেলোয়াড় পিএসএলে বিভিন্ন জায়গায় থেকে ৩৫ দিনের জন্য খেলতে সম্মত হয়েছে। তাহলে কেন জাতীয় দলের জন্য পারবে না?”

“কোচিং স্টাফরা অনেকেই যাবে না। আবার প্রধান কোচ বলেছে যাবে। তিনিও মূলত টি-টোয়েন্টির কথাই বলেছেন। খেলোয়াড় যত জনের সঙ্গে কথা বলেছি, তারা বলেছে সংক্ষিপ্ত চায়। সবদিক বিবেচনা করেই ওদের আমরা বলেছিলাম, টি-টোয়েন্টি খেলে চলে আসব। পরে আমরা টেস্ট খেলব।”

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ হওয়ায় টেস্ট সিরিজ নিয়ে বাংলাদেশের ভাবনাটা বেশি। খেলতে না গেলে কি হতে পারে এর উত্তর খুঁজছে বিসিবি।

“আমার মনে হয়, আমাদের যা করতে হয় কালকের মধ্যেই করতে হবে। সময় নেই। সময় এখন একদম হাতে নেই। আমাদের দেখতে হবে, গেলে কি হবে, না গেলে কি হবে? সেটা নিয়েই আজকে সবার সঙ্গে আলাপ করেছি।”

“টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ব্যাপারটা নিয়েই চিন্তিত। দ্বি-পাক্ষিক সিরিজ নিয়ে চিন্তার কিছু না। আসলে এটা আমাদের কাছেও পরিস্কার না যে, এটা যেহেতু আইসিসির (টুর্নামেন্ট) এখন এটা যদি না খেলা হয়, কি হবে সেটা আমরাও জানি না।”

ভবিষ্যত সফরসূচি পরিকল্পনায় বলা আছে দুটি টেস্টের কথা। সেখানে একটি টেস্ট খেলার ভাবনাও আছে বিসিবির।

“একটা টেস্ট খেললে টি-টোয়েন্টি সিরিজের চেয়ে কম সময় লাগবে। টি-টোয়েন্টিতে সাত-আট দিন লেগে যাবে। আর টেস্টে পাঁচদিন খেলা, একদিন আগে গেলেই হবে। সেক্ষেত্রে আমরা সংক্ষিপ্ত সময়ের ব্যাপারে যা বলছিলাম ওটাতে কোনো অসুবিধা হচ্ছে না।”

“আমরা যদি এখন বলি যে টি-টোয়েন্টি খেলব, টেস্ট পরে। সেক্ষেত্রে তারা কি রেসপন্স করবে সেটা আমরা জানি না। সেজন্য এখন পর্যন্ত ফাইনাল কিছু হয়নি। কালকের মধ্যে একটা সিদ্ধান্ত ওদের আমরা জানিয়ে দেব। পিসিবিকেও বলা হয়েছে, আমরা কালকের মধ্যে জানাব।”

সূত্রঃ বিডিনিউজ