মহেশখালীতে ইফতার নিয়ে হট্টগোল : বাবার হাতে ছেলে খুন

অনলাইন ডেস্কঃ
ইফতার নিয়ে বাবা ছেলেদের মধ্যে হট্টগোলের এক পর্যায়ে বড় ছেলের দিকে ছুঁড়ে মারা ছুরির আঘাতে আহত হয়ে ছোট ছেলে মারা গেছে। গতকাল শুক্রবার ৬টা ১৯ মিনিটে মহেশখালী উপজেলার কুতুবজুমের ঘটিভাঙ্গার আশ্রয় প্রকল্পের ব্যারেকে এ মর্মান্তিক ঘটনা ঘটে।

নিহত শিশু সিজান মনির (৫) ২নং ব্যারেকের ২২নং কক্ষের বাসিন্দা আনছারুল হকের ছেলে। স্থানীয়রা জানান, ২নং ব্যারেকের ২২নং কক্ষে থাকেন আনছারুল হকের ৫ সদস্যদের পরিবার। ৩ ছেলে ১ মেয়ে নিয়ে পরিবারটির বসবাস।

শুক্রবার ইফতার সামগ্রী কাটতে বসেন বাবা আনছার। সঙ্গে বসেন তিন শিশু সন্তান। এ সময় ইফতার খাওয়ার জন্য হট্টগোল করেন শিশুরা। এতে বিরক্ত হয়ে বড় ছেলে জিদানকে লক্ষ্য করে হাতে থাকা ছুরি ছুঁড়ে মারেন বাবা। ভয়ে বড় ছেলে পালিয়ে গেলে তার জায়গায় থাকা বাড়ির ছোট ছেলে সিজান মনিরের (৫) বুকের বাম পাশে লেগে গুরুতর আহত হয়।

রিমোর্ট এরিয়া হওয়ায় তাকে নিয়ে হাসপাতালে আসতে রাত সাড়ে ৯টা পর্যন্ত সময় লাগে মা রোজিনা বেগমের। মহেশখালী উপজেলা হাসপাতালের ডা. মাহাফুজ আহমদ রাত ১০টায় শিশুটিকে মৃত্য ঘোষণা করেন।

শিশুটির মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। ঘটনার পর থেকে ঘাতক পিতা পলাতক রয়েছে। মহেশখালী থানার ওসি প্রভাষ চন্দ্র ধর জানান, খবর পেয়ে এসআই ইমাম হোসেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ছুরিটি উদ্ধার করে শিশুর ময়না তদন্তের জন্য সদরে নেয়ার উদ্যোগ নিচ্ছেন বলে জানান ওসি। লিখিত অভিযোগ পাওয়ার পর মামলা হবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

সূত্রঃ জাগোনিউজ