ঈদগড়ে ২ লাখ টাকায় খোকনের মুক্তি ॥ টাকা না দেয়ায় এখনো অপহরণকারীদের কবলে কালু

সোয়েব সাঈদ:
ঈদগড়-ঈদগাঁও সড়কের হিমছড়ি ঢালা থেকে অপহৃত আরো এক জনকে নগদ ২ লক্ষ টাকা মুক্তিপন আদায় করে ছেড়ে দিয়েছে সন্ত্রাসীরা।

সন্ত্রাসীর কবলে প্রায় ৩২ ঘন্টা আটক থাকার পর ঈদগড় করলিয়ামুড়া গ্রামের সৌদি প্রবাসী রশিদ আহাম্মদের পুত্র মনিরুল ইসলাম খোকনকে রবিবার রাত সাড়ে ১২ টায় ছেড়ে দেয়া হয়। তাকে ২ লক্ষ টাকা মুক্তিপন নগদ আদায় করে ছেড়ে দেয়ার বিষয়টি ৯ নং ওর্য়াডের মেম্বার শাহাজাহান আমাদের রামু ডটকমকে নিশ্চিত করেছেন।

মনিরুল ইসলাম খোকনকে ছাড়িয়ে আনতে মোট ৩ জন ব্যক্তি নগদ ২ লক্ষ টাকা হাতে নিয়ে রাত ১২ টায় সন্ত্রাসীর দেওয়া ঠিকানায় গহীণ বনে চলে যান এবং একটি গাছের নিছে টাকার থলে রেখে কিছু দুরে এসে অপেক্ষা করতে থাকে। তখন রাত সাড়ে ১২ টায় সন্ত্রাসীদের মোবাইল থেকে জানানো হয় খোকন অপর এক স্থানে তাদের জন্য অপেক্ষা করছে।

অপহরণকারি সন্ত্রাসীদের কথা অনুযায়ী ওই তিন ব্যক্তি সেই স্থানে গিয়ে খোককে আহত অবস্তায় দেখতে পান। পরে তাকে বাড়িতে চিকিৎসা সেবা দেওয়া হয়।

খোকন জানান তাকে শারীরিকভাবে ব্যাপ মারধর করেছে অপহরণকারিরা।

ঈদগড় পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. হাসেম আমাদের রামু ডটকমকে জানান, মনিরুল ইসলাম খোকন বর্তমানে রামু থানায় রয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ২৫ জুন রাত সাড়ে ৮ টায় ঈদগড় ঈদগাঁও সড়কের হিমছড়ি ঢালায় যাত্রীবাহী যানবাহনে ডাকাতি ও ৪ জন যাত্রীকে অপহরণ করা হয়েছিল।

এই পর্যন্ত ৩ জনকে ছেড়ে দেওয়া হলেও চাহিদামত টাকা দিতে না পারায় অপহৃত মো. কালু প্রকাশ ট্রাক্টর কালুকে এখনো ছেড়ে দেওয়া হয়নি।