পুলিশ সুপার এ বি এম মাসুদ হোসেন স্যার

মুঃ আবুল মনসুরঃ
রামু থানাধীন ফতেঁখারকুল ইউনিয়নের ফারিকুল বিবেকারাম বিহারে অনুষ্ঠিত বৌদ্ধ মহাসম্মেলন ২০১৯ এ কক্সবাজার জেলার সম্মানিত পুলিশ সুপার জনাব এ বি এম মাসুদ হোসেন বি পি এম মহোদয় কে ফুল ও ক্রেস্ট দিয়ে সম্মাননা জানানো হয়েছে।

অনেকদিন ধরে ভাবছি পুলিশ সুপার মহোদয় কে নিয়ে কিছু লিখব। জাতীয় সংসদ নির্বাচন এবং তৎপরবর্তী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন নিয়ে ব্যস্ত থাকার কারণে লিখব লিখব করে আর লেখা হয়ে ওঠেনি। কথায় আছে যেখানে গুণীর কদর নাই, সেখানে গুণীর জন্ম হয় না। তাই বিবেকের তাড়না থেকে এই লিখা।

মায়ানমার থেকে সীমান্ত হয়ে বাংলাদেশে মরণ নেশা ইয়াবা পাচার শুরু হওয়ার পর থেকে অদ্যাবধি কক্সবাজার পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে এ বি এম মাসুদ হোসেন স্যারের নেতৃত্বে সর্বোচ্চ কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। যা আজ সারা বাংলাদেশে প্রশংসিত এবং আলোচিত। এছাড়া মাদক ব্যবসায়ীদের আত্মসমর্পণ এবং প্রতিটি ইউনিয়নে গিয়ে মাদক ব্যবসা ও এর কুফল সম্পর্কে জনগণকে সচেতন করার জন্য একের পর এক সভা-সমাবেশ করে, এসপি স্যার যে উদ্যোগ নিয়েছেন,সেটাও সর্বমহলে প্রশংসিত হয়েছে।

দেশি-বিদেশি ইয়াবা কারবারি এবং পর্দার অন্তরালে থাকা সুবিধাভোগী হোয়াইট কালার ক্রিমিনালদের সমন্বয়ে গঠিত ভয়ংকর ইয়াবা কারবারি সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে, দেশের বৃহত্তর স্বার্থে এই যুদ্ধে, দেশের প্রতিটা মানুষের যার যার অবস্থান থেকে এস পি সারের পাশে থাকা এবং তাকে সহায়তা করা উচিত বলে আমি মনে করি।

প্রিয় স্যার,
বাংলাদেশের মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর মাদকের বিরুদ্ধে ঘোষিত যুদ্ধের একজন যোদ্ধা হিসেবে আপনি এগিয়ে যাবেন এই আশা করি এবং আমরাও আপনার সাথে আছি। কক্সবাজার জেলা পুলিশের সকল সদস্য সবসময় আপনার পাশে আছে। ইন্শাল্লাহ, এই যুদ্ধে আমাদের জয় হবেই।

আপনার সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা করি।

ধন্যবাদ স্যার আপনাকে। আপনার এই অকুতোভয় ও সুযোগ্য নেতৃত্বের জন্য।
———
ওসি, রামু।