প্রতিটি উপজেলায় ফায়ার স্টেশন হচ্ছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্কঃ
দেশের প্রতিটি প্রান্তে ফায়ার সার্ভিসের সেবা পৌঁছে দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান কামাল।

মঙ্গলবার নারায়ণগঞ্জে এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, সারাদেশে প্রতিটি উপজেলায় ফায়ার স্টেশন নির্মাণ করা হচ্ছে। দেশের বিভিন্ন উপজেলায় নির্মাণাধীনসহ দেশে মোট ফায়ার স্টেশনের সংখ্যা ৫৬৫।

তিনি জানান, ফায়ার স্টেশনের জনবল প্রায় ১৫ হাজার। বর্তমানে এর সংখ্যা ৪০৬।

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের পূর্বাচলে ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স কমপ্লেক্সে অফিসার ফাউন্ডেশন কোর্স ৪০তম ব্যাচের ‘পাসিং আউট প্যারেডে’ তিনি প্রধান অতিথি ছিলেন।

পূর্বাচল ফায়ার ট্রেনিং কমপ্লেক্সকে পর্যায়ক্রমে ট্রেনিং একাডেমি হিসেবে গড়ে তোলা হবে বলে জানান মন্ত্রী।

বাংলাদেশ ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের সামর্থ্য বৃদ্ধিতে সরকার কাজ করছে এবং প্রশিক্ষিত জনবল ও দক্ষ জনশক্তি এবং আধুনিক প্রযুক্তিসম্পন্ন যন্ত্রাংশ দিয়ে ফায়ার সার্ভিসকে ঢেলে সাজানো হচ্ছে বলেও তিনি জানান।

ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের বুদ্ধিমত্তা ও শক্তি দিয়ে দুর্ঘটনার ক্ষয়ক্ষতি কমিয়ে রাখা, অগ্নিনির্বাপণে কৌশল ব্যবহার, বিধ্বস্ত ও বহুতল ভবনে আটকে পড়া মানুষকে উদ্ধার, নৌদুর্ঘটনায় ফায়ারের ডুবুরিদের জোড়ালো ভূমিকার প্রশংসা করেন তিনি।

আগামীতে নিওক্লিয়ার আগুন নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা দেশ বিদেশের উচ্চতর প্রশিক্ষণ গ্রহণ করছে বলে তিনি জানান।

“সম্প্রতি চকবাজারে ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের তৎপরতা সারাদেশে প্রশংসনীয় হয়েছে। ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা এদেশের অগ্নিসেনা।”

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নবনিযুক্ত অফিসারদের উদ্দেশে বলেন, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স বহুমাত্রিক সেবাকাজে নিয়োজিত প্রতিষ্ঠান। প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনার চিত্র পরিবর্তন হচ্ছে, দুর্ঘটনাগুলো নতুন চরিত্রে আবির্ভুত হচ্ছে।

“তেমনি আপনাদের অভিজ্ঞতা ও প্রশিক্ষণও আধুনিক হচ্ছে। জনগণের জানমাল রক্ষার পাশাপাশি শৃঙ্খলা ও আচরণ দিয়ে বাহিনীর সুমানও বৃদ্ধি করতে হবে।”

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগের সচিব শহিদুজ্জামান, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল আলী আহমেদ খান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জসীম উদ্দিন, রূপগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মমতাজ বেগমসহ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

পরে মন্ত্রী পূর্বাচলে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স কমপ্লেক্স ভবন উদ্বোধনসহ অধিদপ্তরে নতুন সংযোজিত গাড়ি-পাম্প ও আধুনিক সাজ সরঞ্জাম পরিদর্শন করেন।

সূত্রঃ বিডিনিউজ