রামুতে ৪টিতে আ’লীগ,দুটিতে আ’লীগ বিদ্রোহী জয়ী

সুনীল বড়ুয়া:

কক্সবাজারের রামুতে অনুষ্ঠিত ছয়টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চারটিতে আওয়ামীলীগ সমর্থিত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী এবং দুইটিতে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী জয়লাভ করেছে। ছয় ইউনিয়নের মধ্যে একটিতেও জয় পায়নি বিএনপি। এদিকে বেশিরভাগই ইউনিয়নে শান্তিপূর্ণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলেও কিছু কিছু কেন্দ্রে ভোট কারচুপি,পাল্টাপাল্টি ধাওয়াসহ কিছু বিচ্ছিন্ন ঘটনার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

নির্বাচন কমিশন ঘোষিত বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ফলাফলে উপজেলার ফতেখাঁরকুল সদর ইউনিয়নে ফরিদুল আলম (নৌকা),জোয়ারিয়ানালায় কামাল শামসুদ্দিন আহমদ প্রিন্স (নৌকা), চাকমারকুলে নুরুল ইসলাম সিকদার নৌকা),খুনিয়াপালংয়ে আব্দুল মাবুদ (নৌকা) এবং অপর তিন ইউনিয়নের মধ্যে রাজারকুলে মুফিজুর রহমান (আনারস),দক্ষিণ মিঠাছড়িতে মো. ইউনুচ (আনারস) চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

ফতেখাঁরকুল ইউনিয়নে আওয়ামীলীগ দলীয় প্রার্থী ফরিদুল আলম ‘নৌকা’ ৯৪৩২ ভোট পেয়ে বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি প্রার্থী আবুল বশর বাবু ‘ধানের শীষ’ ৪৭৮৪ ভোট ও শামীম আহসান ভুলু ‘কুঁড়ে ঘর’ ২৮৪ ভোট পেয়েছেন।

চাকমারকুল ইউনিয়নে আওয়ামীলীগ প্রার্থী নুরুল ইসলাম সিকদার ‘নৌকা’ ৩২৭৬ ভোট পেয়ে বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী মুফিদুল আলম ‘মটর সাইকেল’ ৩০৬০ ভোট পেয়েছেন। এ ইউনিয়নে বিএনপির প্রার্থী মোঃ ফয়সাল কাদের ‘ধানের শীষ’ ১২৩৭ ভোট পেয়েছেন।

জোয়ারিয়ানালা ইউনিয়নে আওয়ামীলীগ দলীয় প্রার্থী কামাল শামসুদ্দিন আহমেদ প্রিন্স ‘নৌকা’ ৩৯২১ ভোট পেয়ে বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মো. শরিফুল আলম চৌধুরী ‘অটোরিক্সা’ ২৬৯৩ ভোট ভোট পেয়েছেন। এ ইউনিয়নে বিএনপি প্রার্থী গোলাম কবির ‘ধানের শীষ’ ২২৫৫ ভোট ও আওয়ামীলীগ বিদ্রোহী আবছার কামাল সিকদার ‘ঘোড়া’ ১৭৭১ ভোট পেয়েছেন।

রাজারকুল ইউনিয়নে আওয়ামীলীগ বিদ্রোহী প্রার্থী মুফিজুর রহমান ‘আনারস’ ৪১৬০ ভোট পেয়ে বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি প্রার্থী আব্দুর রহিম ‘ধানেরশীষ’ ৩৩৩৯ ভোট ও আওয়ামীলীগ দলীয় প্রার্থী সরওয়ার কামাল সোহেল ‘নৌকা’ ১৪৪১ ভোট পেয়েছেন।

দক্ষিণ মিঠাছড়ি ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মো. ইউনুচ ভূট্টো ‘আনারস’ ৫১৯০ ভোট পেয়ে বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপি প্রার্থী মো. সাইফুল আলম ‘ধানের শীষ’ ৪৬১১ ভোট পেয়েছেন। এ ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের মো. ওসমান গনি ‘নৌকা’ ১৩৩৮ ভোট পেয়েছেন।

খুনিয়াপালং ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের আব্দুল মাবুদ ‘নৌকা’ ৬৩৯৫ ভোট পেয়ে বেসরকারি ভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী আব্দুল হক ‘চশমা’ ৫৭৭৯ ভোট ও বিএনপি প্রার্থী মোহাম্মদ শাহেদুজ্জামান বাহাদুর ‘ধানের শীষ’ ৩৯৫৫ ভোট পেয়েছেন।