রোয়াংছড়ি উপজেলার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে নতুন বই বিতরণ উৎসব

হ্লাছোহ্রী মারমা, রোয়াংছড়ি, বান্দরবানঃ
রোয়াংছড়ি উপজেলাতে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয় ও নিম্ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নতুন বছরের শিক্ষর্থীদের নতুন বই পেল সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। নতুন বছরের শিক্ষার্থীরা বই পেয়ে খুশি হলেও কিন্তু অভিভাবকরা খুশি হয়নি।

ঘেরাউমুখ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন বই বিতরণ উৎসব অনুষ্ঠানের সময় ছাত্র/ছাত্রীরা শিশু শ্রেণীতে ৫ জন, ১ম শ্রেণীতে ৯জন, ২য় শ্রেণীতে ১৫ জন, ৩য় শ্রেণীতে ১৬জন, ৪থ শ্রেণীতে ১২ জন, ৫ম শ্রেণীতে ৮ জন, সবর্মোট ৬৫জন রয়েছে কিন্তু স্কুলে সহকারি শিক্ষক উহ্লামং মারমা বই বিতরণ সময়ে বলেন সরকারিভাবে ৪জন শিক্ষক থাকার কথা থাকলেও নিয়মিতভাবে উপস্থিতি নাই।

এ স্কুল থেকে সহকারি শিক্ষিকা মাম্যানু মারমা ডিপিএড, বান্দরবানে চলে গেছেন। আরো একজন সহকারি শিক্ষক থাকার কথা থাকলেও সাইফুল ইসলাম কাইন্তারমুখ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ডিপুটেশ আছে কিন্তু আরো আরেক একজন সহকারি শিক্ষক থাকার কথা থাকলেও সহকারি শিক্ষক উচিংঅং মারমা খামতাং পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে ডিপুটিশনে এ স্কুলে যোগদান করেছে কিন্তু প্রধান শিক্ষক না থাকায় সিনিয়র হিসেবে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকে যোগদান করেন। স্কুলের শিক্ষার্থীদের অভিভাবকের শিক্ষকের সংকটের নিয়ে চিন্তা আছে। নিয়মিত শিক্ষক না থাকলে একা শিক্ষকের পক্ষের ক্লাশ করার পক্ষে সম্ভব হবে না বলে জানিয়েছেন। তিনি আরো বলেন, সক্রিয় কমিটির সদস্য/সদস্যার নাথাকায় পুরনোর এসএমসি কমিটিকে নতুনভাবে গঠন করার প্রয়োজন বলে মনে করেন।