‘রমজানে খাদ্যে ভেজাল ও অসামাজিক কর্মকান্ড বন্ধে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান চালানো হবে’

সোয়েব সাঈদ:

পবিত্র রমজান মাসে ব্যবসায়ীদের দ্রব্যমূল্য স্থিতিশীল রাখতে হবে। রমজান মাসের পবিত্রতা অক্ষুন্ন রাখতে প্রশাসন সর্তকাবস্থায় রয়েছে। ব্যবসায়ীদের ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ করতে হবে। ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে দ্রব্যমূল্য তালিকা প্রদর্শন করতে হবে। মঙ্গলবার, ৩১ মে সকালে রামু উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত পবিত্র মাহে রমজানে দ্রব্য মূল্য স্থিতিশীল ও আইন-শৃংখলা সমুন্নত রাখার লক্ষে প্রস্তুতি সভা এবং ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন বিষয়ক সেমিনারে বক্তারা এ সব কথা বলেন।

পৃথক সভা ও সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, রামু উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মো. আলী হোসেন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার সেলিনা কাজী পৃথক এ সভা ও সেমিনারে সভাপতিত্ব করেন। উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ও জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের সহযোগিতায় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন-২০০৯ বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।

এ পৃথক অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, পবিত্র রমজানে মাসে ইফতার, সেহেরী ও তারাবীহ নামাজের সময় লোডশেডিং করা যাবে না। এ ব্যপারে উপজেলা আবাসিক প্রকৌশলীকে অনুরোধ জানানো হয়। রমজান মাসে ব্যবসায়ীরা পঁচাবাসি খাবার বিক্রি করলে খবর পাওয়া মাত্রই পুলিশ অভিযান চালাবেন বলে বক্তব্য প্রদান করেন রামু থানা অফিসার ইনচার্জ।

পবিত্র রমজান মাসে খাদ্যে ভেজাল ও কারচুপি সহ সব রকম অপকর্মের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান চালানো হবে বলেও হুশিয়ারী উচ্চারণ করেন নিবার্হী ম্যাজিষ্ট্রেট ও ইউএনও সেলিনা কাজী। ইউএনও সেলিনা কাজীর সঞ্চালনায় এতে বক্তব্য রাখেন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) মাহবুব উল করিম, রামু থানা অফিসার ইনচার্জ প্রভাষ চন্দ্র ধর, উপজেলা প্রাণী সম্পদ কর্মকর্তা রূপেন চাকমা, উপজেলা শিক্ষা অফিসার মো. ছালামত উল্লাহ, উপজেলা বিদ্যুৎ সরবরাহ অফিসের আবাসিক প্রকৌশলী অশোক কুমার দাশ, রামু বৌদ্ধ ঐক্য ও কল্যাণ পরিষদের সাধারণ সম্পাদক তরুন বড়ুয়া, রাজনীতিক মাষ্টার নুরুল আমিন, রামু প্রেসক্লাব সভাপতি নুরুল ইসলাম সেলিম, সাবেক সভাপতি খালেদ শহীদ, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসের একাডেমিক সুপারভাইজার মোহাম্মদ তৈয়ব, সাংবাদিক সোয়েব সাঈদ প্রমুখ।