ঝগড়ায় শান্ত থাকার উপায়

লাইফস্টাইল ডেস্কঃ
কথায় বলে ‘রেগে গেলেন তো হেরে গেলেন’- তাই যে কোনো তর্ক-বিতর্কে মাথা ঠাণ্ডা রাখার উপায়গুলো জানা থাকা ভালো।

মানসিক স্বাস্থ্যবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে এই বিষয়ের ওপর প্রকাশিত প্রতিবেদন অবলম্বনে ঝগড়ার সময় শান্ত থাকার কয়েকটি উপায় এখানে দেওয়া হল।

ঝামেলা বাড়তে না দেওয়া:
আমরা অনেক সময় কেবল ঝগড়ায় জিততে বা অন্যজনকে কথার মাধ্যমে আঘাত করার জন্য ঝামেলা বাড়িয়ে চলি। এর ফলে ঝামেলা আরও মারাত্মক রূপ নেয়। তাই সঙ্গী যদি আপনার সঙ্গে ঝামেলা করতে চায় তাহলে তার ইচ্ছায় পানি ঢালতে তার কথার পাল্টা জবাব না দিয়ে বরং চুপ করে থাকুন এবং তাকে এড়িয়ে যান।

নিজের রাগ সম্পর্কে জানুন:
নিজের রাগের ধরন সম্পর্কে ধারণা রাখুন এবং পরে রাগ ওঠার আগে নিজেই সতর্ক হয়ে যান। ঝগড়া হওয়ার উপক্রম হলে আগে থেকেই নিজেকে অবদমন করার চেষ্টা করুন। ঝগড়ায় অংশগ্রহণ না নিয়ে বরং তা পর্যবেক্ষকের ভূমিকা পালন করুন। এতে নিজের রাগারাগি অনেকটা কমে আসবে।

তার কথা শুনুন:
সে কী বলছে তার দিকে মনযোগ না দিয়ে বরং সে কী বলতে চাচ্ছে তা বোঝার চেষ্টা করুন। আপনার সঙ্গে রাগারাগি করে সে কী বলল বা কী বলে বকা দিল সেদিকে মনোযোগ না দিয়ে তার কথা বোঝার চেষ্টা করুন।

গলার স্বর নিচু রাখুন:
‘চিৎকার’ কেবল ঝগড়ার মাত্রা বাড়ায় এবং আপনাকে আরও রাগিয়ে দেয়। অন্যদিকে, নিচু স্বরে কথা বললে প্রতিপক্ষও ঠাণ্ডা থাকবে। এছাড়া আপনার দেহ-ভঙ্গি যেন খুব বেশি মারমুখি না হয় সেদিকেও খেয়াল রাখা উচিত। এর ফলে আপনার প্রতিপক্ষও ঠাণ্ডা থাকবে এবং ঝগড়া খুব বেশি খারাপ পর্যায়ে যাবে না।

শ্বাস:
ঝগড়া শুরু হওয়ার আগে বড় বড় শ্বাস নিন এবং কয়েক গ্লাস পানি পান করুন। বড় শ্বাস শান্ত রাখতে সাহায্য করবে। তাছাড়া এটা মস্তিষ্ককে শান্ত থাকার হরমোন নিঃসরণের সংকেত দেবে।

‘অহম’ থেকে সাবধান:
নিজেকে সংযত না রেখে বা নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে তর্কে জড়ানোর মতো লজ্জার আর কিছু নেই। অন্যজন যদি তর্কে জিততে চায় তবে তাকে তাই করতে দিন। নিজেকে এমন পরিস্থিতিতে শান্ত ও নিয়ন্ত্রণে রাখার জন্য ধন্যবাদ দিন।

সূত্রঃ বিডিনিউজ