বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের দুটি সেমিফাইনাল কক্সবাজারে

ক্রীড়া ডেস্কঃ
সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে বাংলাদেশ এখন শুধুই আয়োজক। গ্যালারির মানুষগুলো দর্শক মাত্র। অনেকটা আপনঘরে পরবাসী। বাংলাদেশের দৃষ্টি এখন বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপে। জাতির জনকের নামের এ আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত হবে ১ থেকে ১২ অক্টোবর।

শুরুতে টুর্নামেন্টের ভেন্যু ছিল দুটি বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম ও সিলেট স্টেডিয়াম। পরে তৃতীয় ভেন্যু হিসেবে বাফুফের বিবেচনায় চলে আসে নীলফামারী। ২৯ আগস্ট বাংলাদেশ-শ্রীলংকার ম্যাচের দর্শক দেখেই নীলফামারীতে দুটি সেমিফাইনালের কথা ভেবেছিল বাফুফে।

কিন্তু হঠাৎ করে তৃতীয় ভেন্যু হিসেবে চলে আসে কক্সবাজারের নাম এবং সম্ভাবনায়ও পেছনে ফেলে নীলফামারীকে। কারণ, একাধিক। যাতায়াত, আবাসন ও মাঠ। নীলফামারীতে খেলা হলে দলগুলোকে রাখতে হবে রংপুরে। যেখান থেকে বাসে নীলফামারী স্টেডিয়াম ৪০ মিনিটের পথ।

যদি দর্শক বিবেচনায় আনা হয় তাতেও পিছিয়ে থাকবে না কক্সবাজার। এর আগে কক্সবাজার স্টেডিয়ামে নারী সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ হয়েছিল। সব দিক বিবেচনায় কক্সবাজার বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের দুটি সেমিফাইনালের ভেন্যু হিসেবে অনেকটাই চূড়ান্ত।

বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাইম সোহাগ জাগো নিউজকে বলেছেন, ‘হাতে সময় কম। সোমবারই সিদ্ধান্ত নেবো বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপের দুটি সেমিফাইনাল নীলফামারীতে নাকি কক্সবাজারে।’ ৬ জাতির টুর্নামেন্টের গ্রুপ পর্বের ম্যাচগুলো হবে সিলেটে। ফাইনাল বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে।

টুর্নামেন্টের ‘এ’ গ্রুপে খেলবে তাজিকিস্তান, ফিলিস্তিন ও বর্তমান চ্যাম্পিয়ন নেপাল। ‘বি’ গ্রুপে ফিলিপাইন, লাওস ও স্বাগতিক বাংলাদেশ।