সর্বশেষ সংবাদঃ

ঘর হারানো পাহাড়িদের জন্য প্রদর্শনী

ডেস্ক রিপোর্ট:
রাঙ্গামাটির লংগদু উপজেলার তিনটি গ্রামের প্রায় ২৩৩টি ঘর দুর্বৃত্তদের দেয়া আগুনে পুড়ে যায় গত ২জুন। এতে নিঃস্ব হয়ে পড়ে প্রায় কয়েকশ’ পরিবার। আর্থিক সহায়তার পাশাপাশি ক্ষতিগ্রস্থদের ঘর করে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি প্রশাসনের পক্ষ থেকে দেওয়া হলেও আজও তা বাস্তবায়ন হয়নি। এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে প্রশাসনকে প্রতিশ্রুতি রক্ষা করার আহবান জানিয়েছেন বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন।

সোমবার রাজধানীর ধানমন্ডির দৃক গ্যালারিতে লংগদু’র ক্ষতিগ্রস্থদের জন্য অর্থ সংগ্রহ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এই আহবান জানান তিনি। পাহাড়ি নেতাদের অভিযোগের প্রেক্ষিতে তিনি বলেন, ‘আমি প্রশাসনের প্রতি আহবান জানাচ্ছি তারা যেন ক্ষতিগ্রস্থদের দেওয়া প্রতিশ্রুতি রক্ষা করে। এর পাশাপাশি এই হামলায় জড়িতদের বিচারের মুখোমুখি করার ব্যবস্থা নিতে হবে। আমাদের সকলকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে, তাহলেই একমাত্র মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বাস্তবায়ন করা সম্ভব।’

অনুষ্ঠানের শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য রাখেন ইতিহাসবিদ ও গবেষক মেসবাহ কামাল। এছাড়া আরও বক্তব্য রাখেন জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের সদস্য বঞ্চিতা চাকমা, কবি ও সাংসদ কাজী রোজী এবং লংগদু’র স্থানীয় প্রতিনিধি মনি শংকর চাকমা।

ট্যারাকোটা ক্রিয়েটিভের উদ্যোগে আয়োজিত এই প্রদর্শনীতে স্থান পেয়েছে ক্ষতিগ্রস্থদের পুড়ে যাওয়া বিভিন্ন সামগ্রী দিয়ে করা ইন্সটলেশন আর্ট, বিভিন্ন শিল্পীর আঁকা ছবি, আলোকচিত্র, পারফর্মিং আর্ট, পাহাড়ি খাবার এবং পাহাড়িদের হাতে বানানো নানা শৈল্পিক সামগ্রী। এসব কিছু বিক্রির অর্থ ক্ষতিগ্রস্থদের পুনর্বাসনে ব্যয় করা হবে। তিন দিনব্যাপী এই প্রদর্শনী চলবে ১৮ অক্টোবর পর্যন্ত প্রতিদিন বিকেল ৩টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত।

সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন।

মন্তব্য করুন

(বিঃ দ্রঃ আপনার ইমেইল গোপন রাখা হবে) Required fields are marked *

*

Shares