প্রয়াত প্রদীপ কুমার বড়ুয়ার উদ্দেশে সংঘদান ও অষ্টপরিষ্কারদান অনুষ্ঠিত

রামু প্রতিনিধি:

প্রয়াত প্রদীপ কুমার বড়ুয়ার পারলোকিক সদগতি কামনায় সংঘদান ও অষ্টপরিষ্কার দানসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২৮ মার্চ সকাল ১০টায় রামু উপজেলার হাজারীকুল গ্রামের নিজবাড়িতে উক্ত সভা অনুষ্ঠিত হয়।

দ্বীপ শ্রীকুল ধর্মরত্ন বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ ভদন্ত প্রজ্ঞাবর মহাথের’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় ধর্মদেশনা করেন, উত্তর মিঠাছড়ি প্রজ্ঞামিত্র বন বিহারের অধ্যক্ষ ভদন্ত সারমিত্র মহাথের, বিমুক্তি বিদর্শন ভাবনা কেন্দ্রের অধ্যক্ষ ও ভুবন শান্তি ১০০ ফুট গৌতম সিংহশয্যা বুদ্ধমূর্তির প্রতিষ্ঠাতা ভদন্ত করুণাশ্রী থের প্রমূখ।

সভায় ভদন্ত সেকাসারা মহাথের, ভদন্ত উপানন্দ মহাথের, ভদন্ত প্রজ্ঞাবোধি থের প্রমূখ অর্ধ শতাধিক ভিক্ষু-শ্রামণ উপস্থিত ছিলেন।

ধর্মদেশনায় সারমিত্র মহাথের বলেন, ‘সংঘদান মানে একতার শরণ গ্রহণ করা। আমাদের উচিত সংঘদানের মর্মার্থ উপলব্দি করে ঐক্যবদ্ধ ভাবে শান্তি-সম্প্রীতির মাধ্যমে বসবাস করে সমাজ, দেশ ও রাষ্ট্রের কল্যাণ সাধন ’করা।

সভায় করুণাশ্রী থের বলেন, ‘বাংলাদেশে বৌদ্ধধর্ম  টিকিয়ে রাখতে হলে ধর্ম-বিনয়ে অভিজ্ঞ, সুদক্ষ, সুশিক্ষিত, বিচক্ষণ ও সমাজ দরদী আরো বেশি বেশি ভিক্ষু সৃষ্টি করতে হবে।

তিনি আরো বলেন, বিশ্বে বৌদ্ধধর্মাবলম্বীর সংখ্যা বেশি হলেও জন্মভূমি বাংলাদেশে ক্রমশ কমে যাচ্ছে। অথচ ভারতের পরে সবচেয়ে বেশি বৌদ্ধ পুরাকীর্তি, নিদর্শন, স্থাপনা ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে বাংলাদেশে। এদেশের মাটির সাথে মিশে আছে বৌদ্ধদের সুপ্রাচনীন ইতিহাস।

এসময় তিনি প্রয়োজনে বুদ্ধশাসনে দান করার মানসে একটি করে সন্তান বেশি নেওয়ার জন্য মাতাপিতাকে বিবেচনা করার আহবান জানান’।