রামুতে ক্ষুদে বিজ্ঞানীদের বিজ্ঞান মেলায় প্রফেসর মোশতাক আহমদ- জীবন ও সমাজকে এগিয়ে নিতে বিজ্ঞানের বিকল্প নেই

খালেদ শহীদ:
রামুতে ‘উন্নত আগামীর জন্য বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি’ প্রতিপাদ্যে ক্ষুদে বিজ্ঞানীদের দু’দিন ব্যাপী বিজ্ঞান মেলা শেষ হয়েছে। বুধবার (১৯ এপ্রিল) বিকালে রামু খিজারী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত বিজ্ঞান মেলা সমাপনী দিনের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন, রামু কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ শিক্ষাবিদ প্রফেসর মোশতাক আহমদ। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহা. শাজাহান আলি এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন।

রামুতে ৩৮ তম জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহ উপলক্ষে আয়োজিত বিজ্ঞান মেলায় বিজ্ঞান অলিম্পিয়াডে রামু উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ের ছাত্রী সাবিনা সুলতানা রিফা প্রথম ও করিমুন নেছা কলি তৃতীয়, জারাইলতলী উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী আয়েশা ছিদ্দিকা দ্বিতীয় স্থান অর্জন করে। ‘বায়োমাস থেকে বায়োগ্যাস উৎপাদন’ প্রকল্প উপস্থাপন করে, ক বিভাগ জুনিয়র গ্রুপে মনসুর আলী সিকদার আইডিয়্যাল স্কুল প্রথম, ‘সৌর বিদ্যুতের সাহায্যে পানি সেচ’ প্রকল্প উপস্থাপনে রামু খিজারী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় দ্বিতীয়, ‘সমৃদ্ধ বাড়ি’ প্রকল্প উপস্থাপনে নাদেরুজ্জামান উচ্চ বিদ্যালয় তৃতীয় স্থান অর্জন করে।

unnamed

খ বিভাগ সিনিয়র গ্রুপে ‘জলীয় বাষ্প থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদন’ প্রকল্প উপস্থাপনে রামু উচ্চ বালিকা বিদ্যালয় প্রথম, ‘বায়ো বিদ্যুৎ উৎপাদন’ প্রকল্প উপস্থাপনে রামু খিজারী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় দ্বিতীয়, ‘স্বল্প খরচে ওয়াটার পাম্প তৈরী’ প্রকল্প উপস্থাপনে দক্ষিণ মিঠাছড়ি উচ্চ বিদ্যালয় তৃতীয় স্থান অর্জন করে।

‘পরিকল্পিত নগরায়নে সম্ভাব্য রামু পৌরসভা’ প্রকল্প উপস্থাপন করে রামু বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ বিশেষ পুরস্কার অর্জন করে।

প্রফেসর মোশতাক আহমদ বলেন, জীবন ও সমাজকে এগিয়ে নিতে বিজ্ঞানের বিকল্প নেই। চর্চা করতে করতে বিজ্ঞানীরা অনেক কিছু আবিস্কার করেন। জ্ঞান-বিজ্ঞানের শিক্ষা সম্পর্কে সচেতনা বাড়াতে না পারলে আবিস্কার করা সম্ভব নয়। চর্চা ও আবিস্কার সমাজকে বদলে দেবে, দেশের উন্নয়ন ঘটাবে। চর্চা এবং বিজ্ঞান শিক্ষার মাধ্যমে আজকের শিক্ষার্থীদের জীবন সমৃদ্ধ করবে।

ইউএনও মোহা. শাজাহান আলি বলেন, ক্ষুদে বিজ্ঞানী হিসেবে আজকের বিজ্ঞান মেলায় অংশ নিয়েছে যারা, আগামী দিনে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে ভূমিকা রাখবে তারা। আগামী দিনে বাংলাদেশের বিখ্যাত বিজ্ঞানী হিসেবেও সুনাম অর্জন করতে পারবে। যদি পরিকল্পনা থাকে, তাহলে যে কোন ইচ্ছার প্রতিফলন ঘটানো সম্ভব।

unnamed

অধ্যাপক নীলোৎপল বড়ুয়ার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত দু’দিন ব্যাপী বিজ্ঞান মেলার সমাপনী দিনের আলোচনা সভায় বক্তৃতা করে, উপজেলা একাডেমিক সুপারভাইজার মোহাম্মদ তৈয়ব, সমাজসেবা অফিসার খন্দকার বিল্লাল হোসেন, পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা জসিম উদ্দিন মোহাম্মদ ইউছুপ, রামু কলেজের প্রদর্শক মুজিবুল হক, কাউয়ারখোপ হাকিম রকিমা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কিশোর বড়ুয়া, রাজারকুল আজিজুল উলুম ইসলামিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা মোহছেন শরিফ, রামু খিজারী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মুফিজুল ইসলাম, জারাইলতলী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হোসাইনুল ইসলাম মাতবর, মনসুর আলি সিকদার আইডিয়্যাল স্কুলের প্রধান শিক্ষক আবদুল হাসেম, জোয়ারিয়ানালা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ হোছাইন, রামু বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক জয়নাল আবেদিন, দক্ষিণ মিছাঠড়ি উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক সাব্বির আহমদ, চাকমারকুল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান সাইফুল ইসলাম প্রমুখ।

মঙ্গলবার দুপুরে দু’দিন ব্যাপী বিজ্ঞান মেলা উদ্বোধন করেন, রামু উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রিয়াজ উল আলম। রামু উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে অনুষ্ঠিত ৩৮ তম জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সপ্তাহ এবং বিজ্ঞান মেলায় ১২টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা ১৫টি ষ্টল প্রর্র্র্র্র্র্র্র্র্র্র্র্র্র্দশনের মাধ্যমে প্রকল্প উপস্থাপন, বিজ্ঞানভিত্তিক বক্তৃতা ও বিজ্ঞান অলিম্পিয়াডে অংশ নেয়।