গর্জনিয়ায় সামাজিক উন্নয়ন ফোরামের মেধা যাচাই ও বৃত্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ

স্টাফ রিপোর্টার :
রামু উপজেলার গর্জনিয়া ইউনিয়নের বৃহত্তর থিমছড়ি সামাজিক উন্নয়ন ফোরামের মেধা যাচাই ও বৃত্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করেছে কর্তৃপক্ষ।

এতে ট্যালেন্টপুলে বৃত্তি প্রাপ্ত ৫ শিক্ষার্থীর রোল নাম্বার যথাক্রমে- ৩৭, ৪৬, ৪৩, ০৫, ৫২ এবং সাধারণ গ্রেডে বৃত্তি প্রাপ্ত ১৬ শিক্ষার্থীর রোল নাম্বার যথাক্রমে- ৩৮, ১০, ৪৭, ০৩, ২৯, ২৬, ৮৬, ৩৯, ৫৭, ৮১, ৬১, ০৪, ২৩, ০৮, ৫৩ ও ৪১।

গত ৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত পরীক্ষায় ইউনিয়নের ১৯টি প্রতিষ্ঠানের মোট ৮৯ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ২১ জন শিক্ষার্থী মেধা যাচাই ও বৃত্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়। আগামী ৩ মার্চ আনুষ্ঠানিক ভাবে বৃত্তিপ্রাপ্তদের পুরুস্কৃত করা হবে।

থিমছড়ি বাজার চত্বরে ১৩ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত ফলাফল প্রকাশ অনুষ্ঠানে ফোরামের সভাপতি আনোয়ারুল হাকিম আরাফাত ও সাধারন সম্পাদক মুহিব উল্লাহ মুহিবের যৌথ পরিচালনায় অনুষ্ঠিত মেধা যাচাই ও বৃত্তির ফলাফল অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আলহাজ্ব রশিদ আহমদ।

এতে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, মাওলানা কক্সবাজার হাশেমিয়া কামিল মাদ্রাসার প্রভাষক মাওলানা সেলিম উল্লাহ, চট্টগ্রাম জর্জ কোর্টের সিনিয়র আইনজীবি এডভোকেট আবুল মনসুর, থিমছড়ি কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতিব মাওলানা নাজের হোসাইন, ইসলামী ব্যাংক ঈদগাঁও শাখা কর্মকর্তা নুরুল ইসলাম, নাইক্ষ্যংছড়ি মদিনাতুল উলুম মডেল ইনষ্টিটিউট আলিম মাদ্রাসার শিক্ষক মাওলানা হাবিব উল্লাহ, নাইক্ষ্যংছড়ি প্রেসক্লাবের ক্রীড়া সম্পাদক আব্দুর রশিদ, ইউপি সদস্য কবির আহমদ, গর্জনিয়া ইসলামিয়া মাদ্রাসার শিক্ষক মাওলানা কবির আহমদ, ইউপি সদস্য আব্দুল জব্বার, ফোরাম সহ সভাপতি নুরুল হাকিম, অরবিট একাডেমীর সভাপতি ছিদ্দিক আহমদ, পরিচালক আবুবক্কর ছিদ্দিক সহ এলাকার শিক্ষিত যুবক, জনপ্রতিনিধি, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রধানগন ও ফোরামের সদস্যবৃন্দরা।

মেধা যাচাই ও বৃত্তি পরীক্ষায় থিমছড়ি অরবিট মডেল একাডেমীর ২ জন, জুমছড়ি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৩ জন, নতুন পাড়া শিখন স্কুল ২ জন, থোয়াঙ্গারকাটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ১ জন, পশ্চিম থিমছড়ি শিখন স্কুল ১ জন, মাঝিরকাটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ৪ জন, গর্জনিয়া ইসলামিয়া আলিম মাদ্রাসা ১ জন, পূর্ব থিমছড়ি শিখন স্কুলের ১ জন, হরিনপাড়া শিখন স্কুলের ২ জন, গর্জনিয়া বিদ্যাপিটের ১ জন, জাউচ পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ২ জন, ঘোনার পাড়া শিখন স্কুলের ১ জন, মইন্যাকাটা শিখন স্কুলের ১ জন শিক্ষার্থী অংশগ্রহন করেন।

প্রসঙ্গত’’ অবহেলিত জনপদের মানুষের কাছে শিক্ষার আলো ছড়িয়ে দেওয়ার কথা চিন্তা করেই চলতি বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের ছাত্র মোঃ আনোয়ারুল হাকিম আরাফাতের অক্লান্ত প্রচেষ্টায় সমাজের শিক্ষিত যুবকদের নিয়ে গঠিত হয় বৃহত্তর থিমছড়ি সামাজিক উন্নয়ন ফোরাম।